২৪ ঘন্টাই খবর

সিরাজদিখানে মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ।

সিরাজদিখানে মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ

তুষার আহাম্মেদ- মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানে মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল শনিবার দুপুর ১২টা থেকে ১টা পর্যন্ত উপজেলার খাসকান্দি শাহিনুর বেগম জামিয়াতুল সুন্নাহ ইসলামী মাদ্রাসার সামনে এই মানব বন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। এসময় মানববন্ধনকারীরা সম্রাটের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমুলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবী করেন কয়েক শতাধিক এলাকাবাসী ।

 

সমবেশে বক্তারা অভিযোগ করে বলেন, ষড়যন্ত্রের শিকার হয়ে র‌্যাবের হাতে জোড়া পিস্তল এবং গুলিসহ গ্রেফতার হওয়া হাফেজ মোহাম্মাদ মাহমুদুল হাসান ( সম্রাট) একজন রিয়েল এস্টেট ব্যাবসায়ীর ছেলে। তার পিতা শাহআলম শাজু ব্যাবসায়িকভাবে প্রতিষ্ঠিত তার ব্যাবসায়িক সাফল্যে ঈর্ষান্বিত হয়ে তাকে দমন করতে একটি মহল ষড়যন্ত্রমূলকভাবে র‌্যাব দিয়ে এই ঘটনাটি ঘটিয়েছেন বলেও অভিযোগ তোলেম এলাকাবাসী। এছাড়া সম্রাট একজন কুয়েতপ্রবাসী। সে ২৪ দিন পুর্বে ছুটিতে বাংলাদেশে এসেছে। তাকে গ্রেফতারের ঘটনাটি সাজানো এবং অন্যায়ভাবে ফাঁসানো হয়েছে দাবি করে বক্তারা অবিলম্বে এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সম্রাটের মুক্তির দাবি জানান। অন্যথায় এলাকাবাসীকে সঙ্গে নিয়ে কঠোর আন্দোলনের কর্মসূচি দেবেন বলে হুঁশিয়ারি দেন তারা।সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, সম্রাটের মা রুজিনা বেগম,বালুচর ইউনিয়ন ২ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য ও প্যানেল চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেন,সম্রাটের দাদা শাহজাহান স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতা নুর ইসলাম সহ স্থানীয় এলাকাবাসী।

 

উল্লেখ্য, উপজেলার বালুচর ইউনিয়নের খাসকান্দি গ্রামের শাহ আলম শাজুর ছেলে সম্রাটকে (২১) গত শুক্রবার রাতে নিজ বাড়িথেকে ঘুমথেকে ডেকে র‌্যাব-১০ এর একটি দল তাকে গ্রেফতার করে। পরে তার কাছ থেকে দুইটি পিস্তল, গুলি ও মোবাইল উদ্ধার করা হয় বলে র‌্যাব দাবি করে তাকে সিরাজদিখান থানায় সোপর্দ করে।

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.