২৪ ঘন্টাই খবর

নান্দাইলে শালীকে নিয়ে দুলাভাই উধাও ; থানায় শ্বাশুড়ির অভিযোগ

সাব্বির আহমেদ :

ময়মনসিংহের নান্দাইলে নিজ স্ত্রীর ছোট বোন শ্যালিকাকে নিয়ে উধাও হয়েছে আব্দুল হান্নান (৪০) নামে এক ব্যক্তি। জানাগেছে, আব্দুল হান্নান নান্দাইল উপজেলার চন্ডিপাশা ইউনিয়নের ধুরুয়া গ্রামের মৃত আঃ ছোবানের পুত্র। সে একই উপজেলার নান্দাইল ইউনিয়নের ভাটি সাভার গ্রামের মৃত ফজলুর রহমানের বড় কন্যা মুক্তা আক্তারের বর। মুক্তা আক্তারের ছোট বোন রিক্তা আক্তারের দুলাভাই হিসাবে আব্দুল হান্নান নিয়মিত তাদের বাড়িতে যাতায়াত করতো। সেই সুবাদে শ্যালিকার সাথে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলে আব্দুল হান্নান। এক পর্যায়ে গত ২১শে জুন/২১ইং ভোরে শ্যালিকা রিক্তা আক্তারকে সঙ্গে নিয়ে আব্দুল হান্নান এলাকা থেকে উধাও হয়ে যায়। তবে স্থানীয়দের ধারনা শ্যালিকা রিক্তা আক্তারের সাথে দুলাভাই আব্দুল হান্নানের গভীর প্রেমের সম্পর্ক ছিল। থানায় দায়েরকৃত অভিযোগ সূত্রে জানাগেছে, শ্বাশুড়ির বসত ঘরে রক্ষিত নগদ ১ লাখ ৮৬ হাজার টাকা ও প্রায় দেড় লাখ টাকা মূল্যের স্বর্ণালংকার সহ শ্যালিকা রিক্তা আক্তারকে নিয়ে উধাও হয়ে যায় তার দুলাভাই। এ বিষয়ে আব্দুল হান্নানের শ্বাশুড়ি ফিরোজা বেগম জানান, তার মেয়ে রিক্তা আক্তারের খোঁজ জানতে আব্দুল হান্নানের বাড়িতে গেলে তার বড় মেয়ে মুক্তা আক্তারকে আব্দুল হান্নানের পরিবারের লোকজন মারধর করে এবং বিভিন্ন ধরনের হুমকী দিয়ে বাড়ি থেকে তাদের তাড়িয়ে দেয়। তবে স্থানীয় এক ব্যাক্তির নিকট মোবাইল ফোনে আব্দুল হান্নান জানিয়েছেন তার ছোট মেয়ে রিক্তা আক্তার তার সঙ্গেই আছে এবং ভালো আছে। পরে এ ঘটনায় শ্বাশুড়ি ফিরোজা বেগম বাদী হয়ে নান্দাইল মডেল থানায় আব্দুল হানান সহ তার সহযোগী ৫ জনের নামে একটি মামলা দায়ের করে। বর্তমানে মামলাটি তদন্তাধীন রয়েছে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.