২৪ ঘন্টাই খবর

ব্রাজিলে লকডাউনের পক্ষে কথা বলায় সাংবাদিকের বাড়িতে আগুন

ব্রাজিলে করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে লকডাউনের পক্ষে কথা বলায় এক সাংবাদিকের বাড়িতে আগুন দেয়ার ঘটনা ঘটেছে। দেশটির গোয়েন্দা পুলিশ একজনকে আটক করার পর আগুন দেয়ার কথা স্বীকার করেছেন প্রেসিডেন্ট জেইর বোলসোনারো ওই উগ্র সমর্থক। ১৭ই মে ভোর ৪টা। ব্রাজিলে স্থানীয় একটি পত্রিকার সম্পাদক হোসে আন্তোনিও আরান্তেস ও তার স্ত্রীর ঘুম ভাঙে প্রতিবেশীদের চিৎকারে। উঠেই দেখতে পান তাদের বাড়িতে জ্বলছে আগুন।

নিয়ন্ত্রণে বাইরে যাওয়ার আগেই আগুন নেভাতে সক্ষম হন তারা। সিসিটিভির ফুটেজে দেখা যায় ওই ঘটনা। দেশটির গোয়েন্দা পুলিশ এ ঘটনায় জড়িত ক্লাডিও অ্যাসিস নামে একজনকে আটক করে। জিজ্ঞাসাবাদে নিজেকে প্রেসিডেন্ট বোলসোনারো সমর্থক দাবি করে তিনি স্বীকার করেন, করোনা নিয়ন্ত্রণে কঠোর বিধিনিষেধের পক্ষে কথা বলায় আরান্তেসের বাড়িতে আগুন দেন তিনি। সাংবাদিক হোসে আন্তোনিও আরান্তেস বলেন, “ঈশ্বর আমাদের রক্ষা করেছেন। আগুন খুব দ্রুতই ছড়িয়ে পড়ছিল। এসব কিছুর জন্য প্রেসিডেন্ট বোলসোনারোই দায়ী। তার জন্যই এ আন্দোলন শুরু হয়েছে।” দেশটির ন্যাশনাল ফেডারেশন অফ জার্নালিস্ট এর হিসাবে, ২০২০ সালে ব্রাজিলে করোনা মহামারির মধ্যেই ৪২৮ জন সাংবাদিকের ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। করোনা বিপর্যস্ত ব্রাজিলে সংক্রমণ রোধে জনগণের পক্ষ থেকে বারবার কঠোর বিধিনিষেধ আরোপের কথা বলা হলেও অনেকটা স্বেচ্ছাচারী কায়দায় সব কিছু খুলে রাখার পক্ষে অবস্থান নেন প্রেসিডেন্ট বোলসোনারো।  এর প্রতিবাদের দেশটিতে আন্দোলনের ঘটনাও ঘটে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.