২৪ ঘন্টাই খবর

স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে মাঠে নেমেছে কুলিয়ারচর থানার ওসি এ.কে.এম সুলতান মাহমুদ। সংবাদ ৫২.২৪ ঘণ্টা খবর।

স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে মাঠে নেমেছে কুলিয়ারচর থানার ওসি এ.কে.এম সুলতান মাহমু

 

মুহাম্মদ কাইসার হামিদ, কিশোরগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি :

 

মরণঘাতী করোনা ভাইরাস কোভিড-১৯ দ্বিতীয় ধাপ মোকাবেলায় দেশব্যাপী বাংলাদেশ পুলিশের উদ্যোগে সচেতনতামূলক কার্যক্রম শুরু করেছে। এরই অংশ হিসেবে “মাস্ক পরার অভ্যেস, করোনামুক্ত বাংলাদেশ” এ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে কিশোরগঞ্জ জেলার পুলিশ সুপার মাশরুকুর রহমান খালেদ বিপিএম (বার) ও ভৈরব সার্কেলের সিনিয়র এএসপি রেজুয়ান দীপুর নির্দেশনায় স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করার অঙ্গীকার নিয়ে মাঠে নেমেছে কুলিয়ারচর থানা পুলিশ। 

 

প্রতিদিনের ন্যায় আজ বৃহস্পতিবার (২৯এপ্রিল) দুপুরে কোভিড-১৯ নিয়ে সচেতনতা বৃদ্ধি ও উদ্বুদ্ধকরণের লক্ষে উপজেলার ডুমরাকান্দা – বেলাব রাস্তার ফরিদপুর ইউনিয়নের নাপিতেরচর ব্রীজ সংলগ্ন এলাকায় মাস্ক বিহীন পথচারী, বিভিন্ন যানবাহনের চালক ও যাত্রীদের মাঝে বিনামূল্যে মাস্ক বিতরণ করেন থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এ.কে.এম সুলতান মাহমুদ।

 

দুপুরের দিকে অধিকাংশ মানুষকে মাস্কবিহীন অবস্থায় রাস্তা দিয়ে চলাচল করতে দেখা যাওয়ায় ওসি এ.কে.এম সুলতান মাহমুদ রাস্তায় দাড়িয়ে তাদের ডেকে শতাধিক ব্যক্তির হাতে মস্ক তুলে দিয়ে মাস্ক পরিধাণ করে চলাচল করতে উৎসাহিত করেন।

 

এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, এসআই মো. আলী আকবর, বীর মুক্তিযোদ্ধা মঞ্জুর আহমেদ, উপজেলা প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি মুহাম্মদ কাইসার হামিদ, সাংবাদিক মো. সবুজ মিয়াসহ পুলিশ সদস্য ও গ্রাম পুলিশবৃন্দ।

 

পরে তিনি উপজেলার ফরিদপুর ও সালুয়া ইউনিয়নের অসহায় মানুষের মাঝে নিজস্ব অর্থায়নে মাস্ক ও খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেন।

 

 

 

থানার অফিসার ইনচার্জ এ.কে.এম সুলতান মাহমুদ বলেন, করোনা মোকাবেলায় জনসাধারণকে সচেতন, উদ্বুদ্ধ ও অনুপ্রাণিত করার পদক্ষেপ হিসেবে এ কর্মসূচি পালন করা হচ্ছে। প্রাণঘাতি কোভিড-১৯ করোনা ভাইরাসের এই ক্রান্তিকালে এলাকাবাসীকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার জন্য অনুরোধ করে তিনি আরো বলেন, স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করার লক্ষে কুলিয়ারচর থানা পুলিশের পক্ষ থেকে এ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.