২৪ ঘন্টাই খবর

পাথরঘাটায় গলায় ফাঁস দিয়ে গৃহবধূর আত্মহত্যা !

নিজস্ব সংবাদদাতা :

বরগুনা জেলার পাথরঘাটা উপজেলার ২নং নাচনাপাড়া ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের মোসাঃ জেসমিন ২৫ গৃহবধূ গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা, নিহত জেসমিন মোহাম্মদ আফজাল হোসেনের ছেলে বধু বিল্লাল হোসেনের স্ত্রী, জেসমিনের বাবার বাড়ি মঠবাড়িয়া উপজেলা তার বাবার নাম মোঃ সোহরাব মাতুব্বর। ঘটনাটি ঘটে আজ রবিবার সকাল সাড়ে সাতটার দিকে তার স্বামীর বাড়িতে।

সূত্রে জানা গেছে, রাতে বিল্লালের দাদির নামে দোয়া ও মিলাদ অনুষ্ঠান হয়, সেখানে বিল্লালের শ্বশুরবাড়ির আত্মীয় স্বজনকে দাওয়াত দেওয়া হয়। কিন্তু তারা বিভিন্ন কারণবশত সেই অনুষ্ঠানে উপস্থিত হতে পারেননি। তাই বিল্লাল তড়িঘড়ি করে মিলাদ ও দোয়া অনুষ্ঠান শেষ করে, বেল্লাল তার শ্বশুরবাড়িতে ভাত-তরকারী নিয়ে যান, বেল্লাল রাত্রে শ্বশুর বাড়ি থেকে আর ফেরেননি, তার শ্বশুর বাড়িতেই অবস্থান করেছিলেন। বাড়িতে তখন তার স্ত্রী জেসমিন ও চার বছরের ছেলে সাইমুম ছিলেন।

বেল্লাল অভিযোগ করেন রাতে তার বাবার সাথে ফোনে আলাপ আলোচনা হয় এবং কথার কাটাকাটি হয় কোন বিষয়ে তা তিনি বলতে পারেন না। সকাল বেলা বেল্লল তার শ্বশুরবাড়ি থেকে নিজ বাড়িতে ফিরে আসার সময় পথেই তার স্ত্রী জেসমিনের গলায় ফাঁস দেওয়ার কথা শুনতে পান। তখন তিনি দ্রুত বাসায় ফিরে আসেন। ওখানে উপস্থিত অনেকই জানিয়েছেন বেল্লাল ফিরে আসার আগেই তার স্ত্রী গলায় ফাঁস দেন।

কিন্তু এদিকে বিভিন্ন সাংবাদিকদের কাছে জেসমিনের নিকটস্থ আত্মীয়-স্বজন বেল্লালের শ্বশুরবাড়ির লোকজন তারা জানিয়েছেন এটা গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা নয়। যেকোনো এক কারণ রয়েছে এর পিছনে। পাথরঘাটা থানা থেকে পুলিশ এসে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নিয়ে যান।

Leave A Reply

Your email address will not be published.