২৪ ঘন্টাই খবর

পাটগ্রামে ভ্রাম্যমাণ আদালতের কাজে বাধা প্রদানে মামলা; ৬ জন গ্রেফতার

আলতাফ হোসাইন সুমন, লালমনিরহাট প্রতিনিধি :
লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার বাউরা বাজারে লকডাউন বিরোধী বিক্ষোভ ও ইউএনও’র ভ্রাম্যমাণ আদালতে হট্রগোল ঘটনায় মামলা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের পেশকার সাজু। গত শুক্রবার ( ৯ এপ্রিল) বিকালের ওই ঘটনার মামলার আসামী ধরতে গতরাতে অভিযান চালিয়ে পাটগ্রাম থানা পুলিশ ৬ জনকে গ্রেফতার করেছেন। এর আগে পাটগ্রাম ইউএনও ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রাম কৃষ্ণ বর্মণের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালতে হোটেল মালিক সিরাজ পাটোয়ারিকে ১ হাজার ও চাল দোকানদার জোবেদ মিয়াকে ৫ ‘শত টাকা জরিমানা করা হয়। করোনাকালে বেঁচা বিক্রি নেই তবুুও ভ্রাম্যমাণ আদালতে কেন জরিমানা করা হবে এমন প্রশ্ন তুলে বাজারে আসা লোকজন হট্রগোল পাকায়। সে সময় জনগণের চাপে পড়ে এক পর্যায়ে জরিমানার টাকা ফেরত দিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করা হয়।
ওই দিনের ঘটনায় দু’দিন পর গতকাল রোববার পাটগ্রাম থানায় একটি মামলা রেকর্ড করা হয়। মামলায় বেশ কয়েকজনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরও অনেক আসামী করা হয়েছে। সরকারি কাজে বাঁধা প্রদান এ মামলায় হোটেল মালিক সিরাজ পাটোয়ারিসহ (৬০)গভীররাতে নিজ নিজ বাড়ী থেকে ৬ আসামীকে গ্রেফতার করেন পুলিশ। এ বিষয়ে পাটগ্রাম থানা ওসি সুমন কুমার মহন্ত বলেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার পরিচালনায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের পেশকার বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেছেন।
পুলিশের অভিযান অব্যাহত থাকবে। এ মামলায় কতজন আসামী তা নির্দিষ্ট করা হয়নি আসামি দের আজ সোমবার জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে বলে জানান ওসি। এদিকে আতংকে রয়েছে বাউরা বাজার ব্যবসায়ীরা। আজ অধিকাংশ দোকানপাট বন্ধ বলে খবর পাওয়া গেছে। এদিকে এ ঘটনায় কথা বলার জন্য পাটগ্রাম ইউএনও রাম কৃষ্ণ বর্মণের ফোনে যোগাযোগ করলে তিনি কল রিসিপ করেননি।
উল্লেখ্য গত শুক্রবার করোনার লকডাউন সময় পরবর্তী বিকেল ৫ টা’র পর দোকান খোলা রাখার দায়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনার সময় ফুঁসে উঠেন বাউরা বাজার ব্যবসায়ীরা। এ সময় হাটে আসা লোকজনও ভীড় করে প্রশাসনিক কাজে বাঁধা সৃষ্টি করেন বলে প্রত্যক্ষদর্শী লোকজন জানান।

Leave A Reply

Your email address will not be published.