২৪ ঘন্টাই খবর

স্কুলশিক্ষক ও তার স্ত্রীর কোটি টাকার অবৈধ সম্পদের খোঁজ পেল দুদক

কুষ্টিয়া সংবাদদাতা : কোটি টাকার অবৈধ সম্পদের তথ্য পেয়ে কুষ্টিয়ায় স্কুলশিক্ষক খলিলুর রহমান ও তার স্ত্রী বিলকিস রহমানের বিরুদ্ধে দুটি মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। সোমবার (০৮ মার্চ) দুপুরে কুষ্টিয়া দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয়ে মামলা দুটি করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কুষ্টিয়া দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের উপপরিচালক মো. জাকারিয়া।

এর মধ্যে এক মামলার আসামি হলেন কুষ্টিয়া হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক খলিলুর রহমান। আরেক মামলার আসামি হলেন প্রধান শিক্ষকের স্ত্রী বিলকিস রহমান। খলিলুর রহমান কুষ্টিয়া সদর উপজেলার পাহাড়পুর গ্রামের মৃত ময়েন উদ্দিন আহমেদের ছেলে। তারা বর্তমানে কুষ্টিয়া শহরের পেয়ারাতলা এলাকার ১৯/৩ জাহের আলী সড়কে বসবাস করেন।

মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়, প্রধান শিক্ষক খলিলুর রহমান অবৈধভাবে ৫২ লাখ ৫৫ হাজার ১৬৯ টাকা আয় করেছেন। এই টাকার ব্যাখ্যা দিতে পারেননি তিনি। একইভাবে তার স্ত্রী বিলকিস রহমান ৫৫ লাখ ৩৩ হাজার ৫৩৪ টাকা অবৈধভাবে আয় করেছেন। তারও আয়ের উৎস দেখাতে পারেননি।

২০০৪ সালের দুর্নীতি দমন কমিশন আইনের ২৬(২) ও ২৭(১) ধারা এবং ২০১২ সালের ৪(২) ও ৪(৩)-এর মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইনে মামলা দুটি করা হয়েছে। কুষ্টিয়া দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের উপপরিচালক মো. জাকারিয়া ঢাকা পোস্টকে বলেন, আইন অনুযায়ী তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.