২৪ ঘন্টাই খবর

তুরাগ থেকে চুরি হওয়া ৪ মাসের শিশু টঙ্গীর হাসপাতাল থেকে উদ্ধার!

মনির হোসেন (শিশির) : রাজধানীর তুরাগ ভাটুলিয়া এলাকার একটি বাড়ি থেকে ৪ মাসের শিশু হারিয়ে যাওয়ার ৬ ঘন্টা পর টঙ্গী থেকে উদ্ধার। উদ্ধারকৃত শিশুটি সুমাইয়া আক্তার সামিহা গাইবান্ধা জেলার আদুরী বেগমের মেয়ে। পুলিশ শিশুটিকে টঙ্গী শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার জেনারেল হাসপাতাল থেকে উদ্ধার করে। মঙ্গলবার (৯ মার্চ)সকাল সাড়ে ১১ টার সময় শিশুটি নিজ বাসা থেকে নিখোঁজ হয়। শিশুটির মা আদুরী বেগম জানান, রাজধানীর তুরাগ ভাটুলিয়া এলাকার মৃত আজিজের বাড়ির ভাড়াটিয়া স্বামী মোঃ শাহীন আলমকে নিয়ে দীর্ঘদিন যাবত বসবাস করে আসছেন। ঘটনার দিন শিশুটির মা আদুরী বেগম শিশুটিকে ঘুমন্ত অবস্থায় রেখে গোসল করতে যায়, গোসল শেষে ঘরে ঢুকে দেখে শিশুটি নেই। কে বা কারা শিশুটিকে নিয়ে গেছে, অনেক খোজাখুজির পরও শিশুটিকে না পেয়ে তুরাগ থানায় একটি নিখোঁজের অভিযোগ করা হয়। খবর পেয়ে তুরাগ থানা পুলিশ অনেক খোঁজাখুঁজির পর টঙ্গী শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার জেনারেল হাসপাতাল থেকে শিশুটিকে উদ্ধার করা হয়। এ বিষয়ে তুরাগ থানার এসআই জাহিদ জানান, নিখোঁজের খবর পেয়ে তুরাগ থানা পুলিশের সদস্যরা শিশুটিকে উদ্ধারের জন্য অভিযান শুরু করে। টঙ্গী পূর্ব থানার এসআই শেখ সজল হোসেন জানান, পুলিশের কাছে খবর আসে টঙ্গী শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার জেনারেল হাসপাতালে অজ্ঞাত নামা এক নারী শিশুটিকে রোগীদের কক্ষে ফেলে রেখে যায়। হাসপাতালে কর্মরত ওয়ার্ডবয় তহিদুল ইসলাম হৃদয় শিশুটিকে টঙ্গী পূর্ব থানা হস্তান্তর করে। নিখোঁজ শিশুটিকে তুরাগ থানা পুলিশ এবং শিশুটির পরিবারের কাছে নিরাপদে হস্তান্তর করা হয়েছে। তুরাগ থানা পুলিশ থানায় নিয়ে আইনি জটিলতা শেষে বাচ্চা টির পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.