২৪ ঘন্টাই খবর

বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় মা-ভাবিকে কুপিয়ে হত্যা, ঘাতক আটক

ভাতিজি বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় মা ও ভাবিকে সোমবার দুপুরে কুপিয়ে হত্যা করেছে কুমিল্লার নাঙ্গলকোটের আদ্রা উত্তর ইউনিয়নের পুজকরা পূর্ব পাড়া গ্রামের আবদুল হাইয়ের ছেলে সাইদুল হক সাইফুল ওরফে সিকি (২৮) নামের এক পাষন্ড। নিহতরা হলেন সাইদুল হকের আপন মা নুরজাহান বেগম (৬৫) ও তার সৎ ভাই আবদুল আজিজের স্ত্রী নুরুন নাহার বেগম (৪৫)। এ সময় আহত হয় অপর ভাতিজি আরজু বেগম ও তার স্বামী পাশ্ববর্তী আদ্রা গ্রামের আরিফুল ইসলাম। ঘাতক সাইদুল হককে আটক করেছে নাঙ্গলকোট থানা পুলিশ। আহতদের কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, সাইদুল হক তার সৎ ভাই আবদুল আজিজের কলেজ পড়ুয়া মেয়ে আখিঁ আক্তারকে (১৮) বিভিন্ন সময় কুপ্রস্তাব ও বিয়ের প্রলোভন দিয়ে আসছে। সোমবার আখিঁর বিয়ের জন্য পাশ্ববর্তী ভোলাইন গ্রাম থেকে বর পক্ষের লোকজন তাদের বাড়ীতে আসার কথা ছিলো। এ খবর ঘাতক সাইদুল হক জানতে পেরে বাড়ীতে কেউ আসতে পারবেনা বলে হুমকি ধমকি দিতে থাকে। পরে একপর্যায়ে সে বটি ও চুরি নিয়ে তার ভাইয়ের ঘরের দিকে যেতে চাইলে তার মা নুরুজাহান বেগম বাধা দেয়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে মাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে হত্যা করে ফেলে রেখে সৎ ভাই আবদুল আজিজের ঘরে গিয়ে তার স্ত্রী নুরুনাহারকে কুপিয়ে ও পরে জবাই করে মৃত্যু নিশ্চিত করে। এ সময় তাদের আত্মচিৎকারে নুরজাহানের বড় মেয়ে আরজু বেগম, তার স্বামী আরিফ এগিয়ে আসলে তাদেরকেও এলোপাতাড়ি কুপিয়ে জখম করে এবং আরজু বেগমের ৯ মাসের শিশু কন্যা আফসানা আক্তারকে ছুড়ে ফেলে দেয়।
এ বিষয়ে আবদুল আজিজ বলেন, সৎ ভাই সাইদুল হক প্রথমে তার বড় মেয়েকে ও পরে ছোট মেয়েকে কুপ্রস্তাব দেয়। এ নিয়ে গত ১৫দিন পূর্বে আদ্রা ইউনিয়ন পরিষদে সালিশ বৈঠক বসে। সেখানে স্থানীয় চেয়ারম্যান আবদুল ওহাব ও সমাজপতিরা তার কাছ থেকে ভাতিজিদের সাথে অশোভন আচরণ করবেনা মর্মে স্টাম্পে লিখিত মুচলেকা নেয়। সোমবার আখিঁর বিয়ের ব্যাপারে দেখতে আসার কথা শুনে সাইদুল হক আমার স্ত্রী ও তার আপন মাকে কুপিয়ে হত্যা করে। এ সময় আমার অপর মেয়ে ও জামাতাকে কুপিয়ে আহত করে। এ ঘটনায় আমি দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবি জানাই।
নাঙ্গলকোট থানার কর্মকর্তা ইনচার্জ (ওসি) বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী বলেন, জাতীয় জরুরী সেবা ৯৯৯ মাধ্যমে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে শ্বাশুড়ি ও পুত্রবধূর লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। অভিযুক্ত সাইদুল হককে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.